বিনোদন ডেস্ক

অন্যকে জানাতে পারেন:

Alexandra Chichikova
আলেক্সান্দ্রা চিচিকোভা। ছবি: সংগৃহীত

সুন্দরী প্রতিযোগিতায় নিতে হলে সুন্দরীদের ক্যাটওয়াক, মেধার প্রমাণ, নাচ, গান ও মডেলিং সবই করতে হয়। আর এসব যারা করেন সেসব সুন্দরীদের সবাই সুস্থ শরীরের হয়ে থাকেন। কিন্তু যারা সুন্দরী, চলতে ফিরতে পারেন না তাদের কি হবে! এখন থেকে এমন সুন্দরীরাও মিস ওয়ার্ল্ড প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে পারবেন।

শনিবার পোল্যান্ডে অনুষ্ঠিত হয়ে গেল পৃথিবীর সর্বপ্রথম হুইল চেয়ার মিস ওয়ার্ল্ড সুন্দরী প্রতিযোগিতা। বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আসা সকল প্রতিযোগীকে ছাড়িয়ে নিজের মেধা এবং কৃতিত্ব দিয়ে প্রথম স্থান দখল করে নেন বেলারুশে’এ বসবাসকারী ২৩ বছর বয়সী আলেক্সান্দ্রা চিচিকোভা। এই সুন্দরী প্রতিযোগিতায় রানার আপ হয়েছেন দক্ষিণ আফ্রিকায় বসবাসকারী ২৪ বছর বয়সী লেবোহাং মনিতসি। জমকালো সেই অনুষ্ঠানে মনোবিজ্ঞানের ছাত্রী আলেক্সান্দ্রা বলেন, ‘লড়াই করেই দূর করতে হবে জীবনের সব ভয় এবং জড়তা’।

‘মিস হুইল চেয়ার ওয়ার্ল্ড’ সুন্দরী প্রতিযোগিতায় নারীদের সৌন্দর্যের পাশাপাশি প্রধান ভাবে গুরুত্ব দেওয়া হয় তাদের ব্যক্তিত্ব, চরিত্র, অবদান, সামাজিক জীবন, জীবনের লক্ষ্য সহ দৈনন্দিন সব কর্মকাণ্ড। প্রতিযোগীদের অধিকাংশই হাঁটতে পারেন না। তাই তারা হুইল চেয়ারে বসেই এই প্রতিযোগিতাং অংশ নেন।

এই প্রতিযোগিতায় পৃথিবীর মোট ১৯টি দেশ অংশগ্রহণ করে। শত প্রতিবন্ধকতার সত্ত্বেও অসাধারণ কৃতিত্বের অধিকারী নারীরা এই আন্তর্জাতিক অনুষ্ঠানটির মাধ্যমে তাদের সফলতা দেখিয়েছেন। অংশগ্রহণকারী এই ১৯টি দেশের মধ্যে রয়েছে অ্যাঙ্গোলা, বেলারুশ, ব্রাজিল, কানাডা, চিলি, ফিনল্যান্ড, ফ্রান্স, গুয়াতেমালা, ভারত, ইতালি, মেক্সিকো, মোল্দাভিয়া, নেদারল্যান্ডস, পোল্যান্ড, রাশিয়া, দক্ষিণ আফ্রিকা, ইউক্রেন এবং যুক্তরাষ্ট্র।

সূত্র :ডেকান ক্রনিকল।

আপনার মন্তব্য